• ঢাকা
  • মঙ্গলবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২৩, ১০:১০ অপরাহ্ন

ইউরোপের আলোকিত সাংবাদিক বীরমুক্তিযোদ্ধা মাহবুবুর রহমান


প্রকাশের সময় : নভেম্বর ৯, ২০২২, ১১:২৬ PM / ২৪১
ইউরোপের আলোকিত সাংবাদিক বীরমুক্তিযোদ্ধা মাহবুবুর রহমান

রিপন শান : আমাদের স্থানীয় জাতীয় ও আন্তর্জাতিক অঙ্গনে এমন কিছু মানুষ আছেন যারা তাদের স্ব স্ব কর্মের দীপ্তি ছড়িয়ে যেমন নিজেরা বিকশিত হয়েছেন তেমনি স্বদেশকে আলোকিত করছেন । ১৯৮৪ সাল থেকে অস্ট্রিয়া প্রবাসী ভোলার সন্তান বীরমুক্তিযোদ্ধা সাংবাদিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান এমন একজন মানুষ ; দেশ ও দেশের মানুষকে ভালোবাসাই যেন তার প্রধান কাজ ।

পৃথিবীর সর্বাধুনিক রাষ্ট্র অস্ট্রিয়ার সেরা বিশুদ্ধ নগরী ভিয়েনায় বসবাসরত মিডিয়াব্যক্তিত্ব এই রসায়নবিদ তার নিজস্ব পরিবার ও পরিমন্ডলের সবাইকে নিয়ে বিশ্বতোরণে বিশেষ করে ইউরোপিয়ান ভূগোলে কীভাবে বাংলাদেশের লালসবুজের সম্মান বৃদ্ধি করা যায়- তা নিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন নিরন্তর । আর এই কাজের অন্যতম সোপান হচ্ছে মাহবুবুর রহমান সম্পাদিত আন্তর্জাতিক অনলাইন বাংলা দৈনিক ইউরো সমাচার এবং ইউরো বাংলা টাইমস। অস্ট্রিয়া বাংলাদেশ প্রেসক্লাব এবং বাংলাদেশ মিডিয়া ক্লাব ইন অস্ট্রিয়ার ব্যবস্থাপনায় অস্ট্রিয়ান গভর্নমেন্ট অনুমোদিত অনলাইন পত্রিকা দুটি অভিনব অগ্রযাত্রায় নিয়মিত প্রকাশিত হচ্ছে ।

বিশ্বসাংবাদিকতার অন্যতম সুহৃদ মাহবুবুর রহমানকে তার জীবন ও কর্মের স্বীকৃতি স্বরূপ ভোলার প্রগতিশীল গণমাধ্যমকর্মীদের সঙগঠন ‘লালমোহন মিডিয়া ক্লাব সম্মাননা পুরস্কার ২০২০ অর্জন করেছেন। পেয়েছেন সেভ দ্য রোড পথযোদ্ধা স্মারক সম্মাননা ২০২২।

অত্যন্ত সুশিক্ষিত তিন কন্যা লাভলী, ডেইজি, শিউলির পিতা, একমাত্র সুযোগ্য পুত্র ভিয়েনা সিটির নির্বাচিত কাউন্সিলর কম্পিউটার ইঞ্জিনিয়ার মাহমুদুর রহমান নয়নের মুক্তিযোদ্ধা পিতা মাহবুবুর রহমান অস্ট্রিয়া তথা সর্ব ইউরোপীয় বাঙালি কমিউনিটিতে আপন প্রজ্ঞা প্রতিভা ও মানবিকতার কল্যাণে স্বনামখ্যাত । সহধর্মিণী দৌলতুন্নেসা রহমান তার সকল শুভ কাজের সারথী । দৈনিক ভোরের সংলাপ ও সাপ্তাহিক সেরাকণ্ঠের অল ইউরোপিয়ান ব্যুরো চিফ হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন মাহবুবুর রহমান । প্রধান উপদেষ্টা মাহবুবুর রহমানের মতো গুণী মানুষের সাহচর্যে অবিরাম এগিয়ে যাচ্ছে অল ইউরোপিয়ান বাংলা প্রেসক্লাব ‘আয়েবাপিসি’ । অতিসম্প্রতি তিনি ভোলা দক্ষিণ প্রেসক্লাব এর প্রধান উপদেষ্টা নির্বাচিত হয়েছেন।

দক্ষ সংগঠক মাহবুবুর রহমান ১৯৮৪,১৯৮৫, ১৯৮৭ এবং ১৯৮৮ সালে সুনামের সাথে বাংলাদেশ অস্ট্রিয়া সমিতির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন । ১৯৭৮ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে রসায়ন শাস্ত্রের সম্মান এবং ১৯৮০ সালে একি বিশ্ববিদ্যালয়ে রসায়নে মাস্টার্স হোল্ডার মাহবুবুর রহমান ১৯৭৫ থেকে ১৯৮৪ পর্যন্ত ভোলা সমিতি ঢাকার সহসম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন ।

১৯৫৮ সালের ৩০ সেপ্টেম্বর ভোলার তজুমদ্দিনের চাপড়ী গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন মাহবুবুর রহমান । যদিও স্বদেশে মানুষের সেবায় সিংহভাগ সময় কেটেছে ভোলার মধ্যমণি লালমোহনে । লালমোহনের আপামর মানুষ তাকে লালমোহনের সন্তান ভাবতেই সাচ্ছন্দ্য বোধ করে ।

মরহুম মৌঃ আসমত আলী এবং মরহুমা মোহসেনা বেগমের আদরের সন্তান মাহবুবুর রহমান ১৯৭৩ সালে মাধ্যমিক ও ১৯৭৫ সালে কৃতিত্বের সাথে উচ্চ মাধ্যমিক সম্পন্ন করে উচ্চ শিক্ষা সম্পন্ন করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে । স্কুল ছাত্রজীবনেই তিনি সরাসরি অংশ নেন ১৯৭১ এর মহান মুক্তিযুদ্ধে । ১৯৭০ সালের বাংলাদেশের উপকূলীয় অঞ্চলে বয়ে যাওয়া ভয়াবহ বন্যা এবং মুক্তিযুদ্ধের উত্তাল দিনগুলোর কথা আজো স্মৃতিতে ভাস্বর তাঁর। গরীবের ভালবাসা তার জীবনের সবচেয়ে বড় প্রাপ্তি বলে মনে করেন মানবসেবক মাহবুবুর রহমান ।

শান ফাউন্ডেশনের প্রধান পৃষ্ঠপোষক, লালমোহন মিডিয়া ক্লাবের প্রধান উপদেষ্টা, অস্ট্রিয়া বাংলাদেশ প্রেসক্লাব ও বাংলাদেশ অস্ট্রিয়া সিনিয়র ক্লাবের সভাপতি, অল ইউরোপিয়ান বাংলা প্রেসক্লাব- আয়েবাপিসি’র প্রধান উপদেষ্টা বিশ্ববরেণ্য সাংবাদিক মাহবুবুর রহমান এমন একজন গুণী মানুষ; তাঁর সততা দক্ষতা মেধা ও মননের ফুলে ফসলে উত্তরোত্তর সমৃদ্ধ হচ্ছে অস্ট্রিয়ার রাজধানী ভিয়েনা থেকে প্রকাশিত অনলাইন দৈনিক ইউরো সমাচার এবং অস্ট্রিয়া ও বাংলাদেশ থেকে একযোগে প্রকাশিত ইউরো বাংলা টাইমস ।

মাহবুবুর রহমানই প্রথম আধুনিক শিল্পায়নের বীজ বপন করেছেন ভোলার লালমোহনে । তিনি প্রথম লালমোহনবাসীকে উপহার দিয়েছিলেন নান্দনিক স্থাপত্যশৈলীর সুরম্য নিবাস ” লাভলী ম্যানসন ” ; যা আজো লালমোহনবাসীর কাছে অপার বিস্ময় । লালমোহনের শিল্প, সংস্কৃতি, সাংবাদিকতা, বহুমাত্রিক সমাজকর্মে ইউরো সমাচার সম্পাদক মাহবুবুর রহমানের অবদান আমরা কোনো দিন ভূলবোনা । চলমান করোনাকালেও তিনি বিভিন্নভাবে প্রসারিত করেছেন মানবতার হাত । যোগ্য পিতার যোগ্য সন্তান হয়েই আজকে তাঁর সন্তান আইসিটি প্রকৌশলী মাহমুদুর রহমান নয়ন, অস্ট্রিয়ার মতো দেশে যুবরাজনীতির আলো ছড়াচ্ছেন। অস্ট্রিয়ান পার্লামেন্ট নির্বাচনে নমিনেশন পাওয়ার দুর্লভ গৌরব অর্জনকারী মাহমুদুর রহমান নয়ন ২০২০ সালের অক্টোবরে অনুষ্ঠিত ভিয়েনা সিটির নির্বাচনে ক্ষমতাসীন অস্ট্রিয়ান পিপলস পার্টি থেকে কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়ে বাংলাদেশের সম্মান বাড়িয়েছেন। নয়ন ক্ষমতাসীন অস্ট্রিয়ান পিপলস পার্টির যুব ফ্রন্টের ভিয়েনা ডিস্ট্রিক্ট প্রেসিডেন্ট ।

ইউরোপ মহাদেশের আধুনিক সভ্যতা, সমাজ সংস্কৃতি, রাজনীতি ও মানবসেবায় ভোলার কৃতিসন্তান বিশ্ববরেণ্য সাংবাদিক মাহবুবুর রহমান ও তাঁর পরিবার প্রতিমুহূর্তে লালসবুজের সম্মান বৃদ্ধি করে চলছেন । দেশের মানুষের বিপদে আপদে বীরমুক্তিযোদ্ধা মাহবুবুর রহমান যেভাবে হাত বাড়িয়ে দেন- কেবল একজন সাগরহৃদয়ী মানুষ বলেই তা সম্ভব । চলমান করোনাকালেও নানানভাবে দ্বীপজেলার ভুক্তভোগী অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছেন মানবদরদী মাহবুবুর রহমান ।

বিশ্বসমাজকর্ম ও বিশ্বসাংবাদিকতার অকৃত্রিম গুণীজন বীরমুক্তিযোদ্ধা মাহবুবুর রহমান বাংলাদেশ রোদসী কৃষ্টিসংসার, ভোলা দক্ষিণ প্রেসক্লাব, শান ফাউন্ডেশন , বীরমুক্তিযোদ্ধা সালাউদ্দিন স্মৃতিমঞ্চ, লালমোহন মিডিয়া ক্লাব, নেক্সাস ৯৩, অনলাইন প্রেস ইউনিটি, সেভ দ্য রোডসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের মানবিক কর্মকাণ্ডের সাথে নিবিড়ভাবে জড়িয়ে আছেন।